তরমুজ বাজারে অস্থিরতায় সাধারন মানুষের ক্রয়ক্ষমতার বাইরে তরমুজ

৪৭

মোঃ সাইফুল ইসলাম, বরিশাল সদর:প্রতিপিস তরমুজ ৪০ থেকে ৫০ টাকায় কিনে একই তরমুজ ওজনে বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকা কেজি হিসাবে। যার দাম পড়ে ১টি তরমুজ ৩ শত থেকে ৪ শত টাকা। ইচ্ছা থাকলেও অনেকে ক্রয় ক্ষমতার বাহিরে দাম হওয়ার কারনে কিনতে পারছে না। হতাশ মনে ফিরছে অনেকে। এই সিন্ডিকেট ব্যবসায়ীদের আইনের আওতায় আনার দরকার বলে অনেকেই মনে করেছেন। পিস হিসেবে কিনে এনে বরিশাল শহরে বিক্রি করছে ৪০ থেকে ৫০ টাকা কেজি হিসাবে। বরিশাল নগরীর প্রতি বাজারের এখন তরমুজ মেপে বিক্রি করছে।এমতা অবস্থায় (২৬ এপ্রিল) সোমবার বিকালে বরিশাল জেলা প্রশাসন এর পক্ষ থেকে বাজার মনিটরিং এর অংশ হিসবে নগরীর বিভিন্ন বাজারে দুইটি মোবাইল কোর্ট টিম অভিযান পরিচালনা করেন।

বরিশালের বিজ্ঞ জেলা ম্যাজিস্ট্রেট জসীম উদ্দীন হায়দার এর নির্দেশনায় এবং অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট গৌতম বাড়ৈ এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে মোবাইল কোর্ট অভিযান পরিচালনা করেন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ আবদুল হাই ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট রয়া ত্রিপুরা।

এসময় বরিশাল নগরীর পোট রোড, ফলপট্টি, জেল খানার মোড়, নতুন বাজার, নথুল্লাবাদ বাসস্ট্যান্ড, চৌমাথা বাজার, বাংলা বাজার এলাকায় মোবাইল কোর্ট অভিযান পরিচালনা করা হয়।

এসময় বাজারে অবস্থানরত ক্রেতাদের অভিযোগের ভিত্তিতে দেখা যায় তরমুজ বিক্রেতারা পিচ হিসেবে তরমুজ কিনে অধিক দামে ক্রেতাদের নিকট কেজি হিসেবে তরমুজ বিক্রি করছে। যা মোবাইল কোর্ট অভিযানে সত্যতা পাওয়া যায়। এই সময় কয়েকজন ব্যবসায়িকে জরিমানার আওতায় আনা হয়।

উক্ত অভিযানে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের একটি টিম আইন-শৃংখলা রক্ষায় সহায়তা প্রদান করেন। অভিযান শেষে এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট বৃন্দ বলেন, জনস্বার্থে এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।

100% LikesVS
0% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.