৮ ডিসেম্বর বরিশাল পাক হানাদার বাহিনী মুক্ত দিবস

১২

ফাইজুল ইসলাম
বরিশাল সদর প্রতিনিধি

আজ ৮ ডিসেম্বর বরিশাল মুক্ত দিবস। ১৯৭১ সালের এই দিনে দখলদার পাকবাহিনী মুক্তিযোদ্ধাদের ভয়ে বারিশাল শহর থেকে তাদের ডেরা গুটিয়ে পালিয়ে যায়। বরিশালশহরসহ বিভিন্ন এলাকা মুক্তিযোদ্ধাদের নিয়ন্ত্রনে চলে যাওয়ায় ৭ ডিসেম্বর পাকিস্তানি সেনারা জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সভা করে বরিশাল ত্যাগের সিদ্ধান্ত নেয়।

ওই দিন বিকেল ৪টা থেকে বরিশালে কারফিউ জারি করেছিল পাকহানাদার বাহিনী। সীমান্তে মিত্র বাহিনী আক্রমণ শুরুর পর থেকে ওই সন্ধ্যা থেকেই পাক সেনারা বরিশাল ত্যাগের প্রস্তুতি গ্রহণ করে। ৮ ডিসেম্বর খুব ভোরে যাত্রীবাহী স্টিমার ইরানী, কিউইসহ লঞ্চ ও কার্গো যোগে পাকবাহিনী, পাক মিলিশিয়াসহ শহরের দালাল ও রাজাকার কমান্ডাররা বরিশাল ত্যাগ করে।

পাকিস্তানি সেনাদের বরিশাল ত্যাগের সংবাদ পেয়ে নবগ্রামের কাছে সুলতান মাস্টারের নেতৃত্বে মুক্তিযোদ্ধাদের দলটি প্রথমে শহরে প্রবেশ করে কোতোয়ালি থানায় স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা উড়ায়। এরপর একে একে মুক্তিযোদ্ধাদের অন্যান্য বাহিনী জেলখানাসহ বহু স্থাপনা দখলে নেয়। পাকিস্তানি সেনাদের পালিয়ে যাওয়ার পর জয় বাংলা ধ্বনিতে হাজার হাজার জনতা রাজপথে নেমে পড়ে। মুক্ত হয় বরিশাল। পাক বাহিনীর শহর ত্যাগের খবরে ৮ মাস ধরে অবরুদ্ধ বরিশালের মুক্তিকামী মানুষ বিজয়ের আনন্দে স্লোগান দিতে দিতে দলে দলে রাস্তায় নেমে আসে।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.