হাটহাজারীতে চোরাইকৃত ১০ ভরি স্বর্ণলংকারসহ ৩ চোর আটক

১০

নিজস্ব প্রতিবেদক:

হাটহাজারীতে চোরাইকৃত ১০ ভরি ০৪ রতি স্বর্ণলংকারসহ ৩ চোরকে আটক করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার ( ২১ জানুয়ারি) সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার দিকে তাদেরকে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ওসি (তদন্ত) রাজীব শর্মা।

থানা সুত্রে জানা যায়, হাটহাজারী উপজেলার ২নং ধলই ইউপির অর্ন্তগত কাটিরহাট বাজারের ইউনিয়ন পরিষদ মার্কেটের নিচতলা জয় গুরু জুয়েলার্স নামক দোকান থেকে গত ১৫ জানুয়ারি রাত অনুমান ০৮.০০ ঘটিকার সময় তিনি স্বণের দোকান বন্ধ করে বাড়ীতে চলে যায়। পরেরদিন ১৬ জানুয়ারি সকাল অনুমান ০৬.০০ ঘটিকার সময় তিনি জানতে পারেন তার দোকানের পিছনের লোহার গ্রীলের দরজার তালা ভেঙে দোকানের সুকেস ও আলমীরার দরজা ভেঙে ভিতরে রাখা স্বর্ণের নাকফুল ৬২টি, ৪টি চেইন, ২৩টি আংটি,৮৭ জোড়া কানের দুল সর্বমোট ওজন ১৪(চৌদ্দ) ভরি ̄^র্ণালংকার,মূল্য অনুমান ৮,৫৪,০০০/-টাকা, বিভিন্ন আইটেমের রূপা যেমন ৮টি চেইন, ২ জোড়া বালা, ৯ জোড়া নুপুর যাহার মোট ওজন অনুমান ১৩ ভরি মূল্য অনুমান ২৬,০০০/-টাকা ও নগদ ১,০০,০০০/-টাকা ও পূবালী ব্যাংক ও ফাস্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক কাটিরহাট শাখার ২টি চেক বই, ইনকাম টেক্স এর নথিপত্র অজ্ঞাতনামা চোর বা চোরেরা চুরি করে নিয়ে যায়।

এ ঘটনায় দোকানের মালিক পংকজ চন্দ্র হাজারী(৫৫), পিতা-মৃত দুলাল হাজারী, সাং-পশ্চিম ধলই, শশী সাধুর বাড়ী,৩নং ওয়ার্ড, ২নং ধলই ইউপি বাদী হয়ে মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

এ মামলায় থানা পুলিশ গত ২১ জানুয়ারি সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় বড়দিঘীর পাড় থেকে মোঃ মহিবুল্লাহ(২০), রুবেল(২৯) , হালিশহর থেকে মোঃ সেকান্দর(৪২) নামে ৩ জন চোরকে আটক করে।

আটককৃত আসামীরা হলেন ১। মোঃ মহিবুল্লাহ(৫০), পিতা-মৃত মফিজুর রহমান, মাতা-বিবি সাহারা খাতুন, সাং-মগদারা, বাহার আলীর বাড়ী, পোষ্ট- ̧ট্টাছাড়া বাজার, থানা-সন্দ্বীপ, জেলা-চট্টগ্রাম, বর্তমানে-লাল দিঘীর পাড়, শাহ আমানত মাজারের থাকে, থানা-কোতোয়ালী, সিএমপি চট্টগ্রাম, ২। মোঃ রুবেল(২৯), পিতা-মোঃ মনির উদ্দিন@মনির@মনু মিয়া, মাতা-রোকেয়া বেগম, সাং-কালাপানিয়া, ইউনুছ ভেন্ডারের বাড়ী, ৮নং ওয়ার্ড, কালাপানিয়া ইউপি, থানা-সন্দ্বীপ, জেলা-চট্টগ্রাম, বর্তমান-কামাল ম্যানশন এর ভাড়াটিয়া, ফুল চৌধুরী পাড়া, আকবর রুটি ওয়ালার বাড়ী, নতুন সাইড, উত্তর হালিশহর, থানা-হালিশহর, সিএমপি চট্টগ্রাম, ৩। মোঃ সেকান্দর(৪২), পিতা-মৃত নাছির আহাম্মদ, মাতা-মৃত ছকিনা বেগম, সাং-১০নং ছলিমপুর, ডাক পিয়নেরবাড়ী, পোঃ জাফারাবাদ, থানা-সীতাকুন্ড, জেলা-চট্টগ্রাম, বর্তমান-পশ্চিম দেওয়ান নগর, ফাঁয়ার সেন্টার, হাজীর তলা আংকুর সর্দারের বাড়ী, থানা-হাটহাজারী, জেলা-চট্টগ্রাম।

সেকেন্ড অফিসার এসআই মোঃ মুকিব হাসান ও পুলিশ পরিদর্শক(তদন্ত) রাজীব শর্মা বলেন, বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে গত ২১ জানুয়ারি সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার সময় ১নং আসামী মোঃ মহিবুল্লাহ(২০) কে অত্র হাটহাজারী থানাধীন বড়দিঘীর পাড় এলাকা হইতে, ২নং আসামী রুবেল(২৯) কে রাত সাড়ে আটটার সময় সিএমপি চট্টগ্রাম এর হালিশহর হতে এবং ৩নং আসামী মোঃ সেকান্দর(৪২) কে রাত ১০টা ৪৫ মিনিটের সময় অত্র হাটহাজারী থানাধীন পশ্চিম দেওয়ান নগর এলাকা হতে গ্রেফতার করা হয়।

এ সময় ২নং আসামী মোঃ রুবেল এর ভাড়া বাসার সামনে রা ̄Íার পাশ থেকে ঘটনার সময় ব্যবহৃত ২টি প্রাইভেটকার এবং ৩নং আসামী মোঃ সেকান্দর এর দেওয়ান নগর বাসা হতে অত্র মামলার চুরি যাওয়া মালের মধ্যে স্বর্ণের নাকফুল ৫১টি, চেইন ১টি, আংটি ২০টি, কানের দুল ৭৫টি সর্বমোট ওজন অনুমান ১০ ভরি, ০৪ রতি, মূল্য অনুমান ৫,৫০,০০০/-টাকা উদ্ধার পূর্বক জব্দ করা হয়।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.