রামপালে কিশোরী ধর্ষণ মামলার চুড়ান্ত রিপোর্ট প্রদান

মোঃ ইকরামুল হক রাজিব,ব্যুরো প্রধান,খুলনা: রামপালে কিশোরীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে অপহরণ ও ধর্ষণের শিকার হওয়ার ঘটনায় দায়ের করা মামলার চুড়ান্ত রিপোর্ট দিয়েছে পুলিশ। এক মাস ১০ দিনের মধ্যে গত সোমবার বাগেরহাটের বিজ্ঞ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এর আদালতে তদন্তকারী কর্মকর্তা রামপাল থানার এসআই আবুল বাশার দুই জন আসামির বিরুদ্ধে এ চুড়ান্ত রিপোর্ট দাখিল করেন।

মামলা সূত্রে জানাগেছে, রামপাল উপজেলার বড়কাঠালী গ্রামের জনৈক মুদি দোকান্দারের কিশোরী কণ্যা (১৩) কে গত ১৯ অক্টোবর সকালে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে অপহরণ করে। এ ঘটনায় ২০ অক্টোবর ভিকটিমের বোন জুথিমনি বাদী হয়ে রামপাল থানায় একটি মামলা করেন।

আসামিরা হলো সাতক্ষীরা জেলার আশাসুনি থানার সুভদ্রাকাঠির ইয়াছিন সানার পুত্র ইলিয়াস সানা (৩৫) ও রামপাল থানার বড়কাটালী গ্রামের হাসেম শেখের পুত্র মাহারুন শেখ (৩৫)। পরে খুলনার র ্যব – ৬ ও রামপাল থানা যৌথ অভিযান পরিচালনা করে ডুমুরিয়া থানার রানাই পালপাড়ার মনা পালের বাড়ি থেকে দুই আসামিসহ ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে। পুলিশ কিশোরীর ডাক্তারী পরীক্ষা সম্পন্ন ও আদালতে জবানবন্দি এবং তদন্ত শেষে আদালতে চুড়ান্ত রিপোর্ট পেশ করেন।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.