মোংলার মানুষের নমুনা সংগ্রহে পাশে রয়েছে ফ্রেন্ডশীপ হেলথ ক্লিনিক

মোঃমাসুদ পারভেজ,বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধিঃ- করোনার শুরু থেকে এখন পর্যন্ত মোংলার সাধারণ মানুষের পাশে রয়েছে ফ্রেন্ডশীপ হেলথ ক্লিনিক। মোংলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ল্যাব টেকনিশিয়ান না থাকায় করোনার শুরুতেই বেকায়দায় পড়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। কিন্তু তখনই সেবার হাত বাড়িয়ে দেন ফ্রেন্ডশীপ হেলথ ক্লিনিক।

ফ্রেন্ডশীপ হেলথ ক্লিনিকের মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট (ল্যাব) মো: নাহিদুজ্জামান জীবনের ঝুঁকি নিয়েই শুরু করেন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা উপসর্গ নিয়ে আসা রোগীদের নমুনা সংগ্রহের কাজ। সেই শুরু থেকেই এখন পর্যন্ত নমুনা সংগ্রহের কাজ করে চলেছেন নাহিদুজ্জামান। নাহিদুজ্জামান এ পর্যন্ত মোংলাসহ আশপাশ এলাকা থেকে আসা ৫৩০ জনের নমুনা সংগ্রহ করেছেন।

এরপর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তা পাঠিয়েছেন খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা পরীক্ষাগারে। এ পর্যন্ত ৫৩০ জনের নমুনা সংগ্রহের মধ্যে ৯৮ জনের পজেটিভ রিপোর্ট এসেছে। তবে সম্প্রতি কমেছে নমুনা সংগ্রহের সংখ্যা। তাই সনাক্তের সংখ্যাও কম। গত দেড় মাসে কোন করোনা পজেটিভ রিপোর্ট আসেনি।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা।

ডা: জীবিতেষ বিশ্বাস বলেন, হাসপাতালে ল্যাব টেকনিশিয়ান নেই। তাই নমুনা সংগ্রহের ক্ষেত্রে ফ্রেন্ডশীপ হেলথ ক্লিনিকের মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট মো: নাহিদুজ্জামান আমাদেরকে সহযোগীতা করে যাচ্ছেন। যা এ এলাকার সাধারণ মানুষের জন্য ফ্রেন্ডশীপের অভূতপূর্ব সহায়তা।

ফ্রেন্ডশীপ হেলথ ক্লিনিকের মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট (ল্যাব) মো: নাহিদুজ্জামান বলেন, আমাদের কাজই মানুষকে কোন না কোনভাবেই সেবা দান করা। সেই সেবার কথা চিন্তা করেই করোনার মত মহামারীর মধ্যে নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়েই এ কাজটি আমি করে যাচ্ছি। যতদিন পর্যন্ত করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হবে ততদিন পর্যন্ত ফ্রেন্ডশীপের পক্ষ থেকে আমাদের এ নমুনা সংগ্রহ কার্যক্রমের সহযোগীতা অব্যাহত থাকবে ইনশাল্লাহ।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.