ভোলায় রাতের আধারে পুকুরে বিষ প্রয়োগে ১০ লাখ টাকার মাছ নিধন

১৩

এইচ এ শরীফ,ভোলা সদর প্রতিনিধি :

ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলায় রাতের আধারে পুকুরে বিষ প্রয়োগে ১০ লাখ টাকার মাছ নষ্ট করা হয়েছে । গত ৫ ডিসেম্বর রাতের আধারে ছোট মানিকা ২ নং ওয়ার্ডের ফরিদুল ইসলামের পুকুরে এই ঘটনা পরিলক্ষিত হয়। সকালে স্থানীয় চেয়ারম্যান ঘটনাস্থলে গিয়ে দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

পুকুরের মালিক জানান গত রোববার ভোরবেলা ঘুম থেকে ওঠার পর হঠাৎ পাশের বাড়ীর মুনাতাহা (১০)নামের বাচ্চা মেয়ে বাদাম কুড়াতে গিয়ে দেখে শত শত মাছ পুকুরে ভেসে আসে তাই সে চিৎকার করে আমাকে ডাকে বাড়িতে আমি স্ত্রী ১ সন্তান নিয়ে একা থাকি, বাকি ছেলেরা ঢাকায় জব করে, এই সুযোগে কে বা কারা বিষ প্রয়োগ করে আমার প্রায় ১০ লাখ টাকার মাছ নষ্ট করে ফেলে।

আমি পুকুরটি ধারদেনা করে ৪৫ হাজার টাকা দিয়ে ৫ বছরের জন্য নিয়েছি।
মাছেন পোনা, খাদ্য সামগ্রীসহ আমার প্রায় ১০লাখ টাকা শেষ।
মাত্র ৪/৫ মাস যেতে না যেতে আমার উপর এত অমানবিক অন্যায় মানতে কষ্ট হচ্ছে। বয়লারের দোকানীও হাজার হাজার টাকা পাবে,এখন আমি কিভাবে কি করব চোখে মুখে পথ দেখতে পাচ্ছি না। তিনি আরো জানান আমি পুকুরের ভিতরে একটি বিষের বোতলও পেয়েছি এবং তা পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছি।
প্রদক্ষদর্শী কুতুবা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান নাজমুল হাসান জোবায়েদ মিয়া জানান ঘটনার দিন আমি পরিদর্শন করেছি বিষয়টা দুঃখজনক, আমি এর সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে বিচার দাবি করছি।

পুকুর মালিকের স্ত্রীর অভিযোগের তীর তারই চাচীর দিকে তিনি বলেন যখন পুকুরটি নিয়েছি তখন থেকেই আমার চাচি রাসেদা বেগম(৫৮) বিভিন্ন সময় কটু কথা বলে, এমনকি হুমকি দেয় যে আমি দেখে নিব কিভাবে মাছ খাও। তবে এমন কথা উড়িয়ে দিয়ে অস্বীকার করেন রাসেদা বেগম।

বোরহানউদ্দিন থানা পুলিশ জানান যে তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিদর্শন করেন।
এ ব্যাপারে সুনির্দিষ্ট তথ্য বের করে প্রকৃত দোষীদের শাস্তি ও ভুক্তভোগীদের’কে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার চেষ্টা করব।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.