পীরগঞ্জে আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী জয়ী- বীর মুক্তিযোদ্ধা একরামুল হক

মোঃমোকসেদুর রহমান,জেলা কো-অর্ডিনেটর, ঠাকুরগাঁওঃ ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ পৌরসভায় সোমবার সকাল আটটা থেকে উৎসব মুখর পরিবেশে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। শীতের তীব্রতার কারণে ভোটারের উপস্থিতি কম থাকলেও বেলা বাড়ার সাথে সাথে কেন্দ্র গুলোতে ভোটার উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মত।

ভোট কেন্দ্রে ভোট দিতে গিয়ে ভোটাররা জানান, শান্তিপূর্ণ ও উৎসব মুখর পরিবেশে সহজভাবে ইভিএম দিতে পেরে তাদের ভালো লেগেছে।

অন্যদিকে ব্যাপক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ভোট কেন্দ্র পরিদর্শন করেন পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান। এছাড়াও নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিল, বিজিবি, র‌্যাব, পুলিশ, আনছারসহ জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটগন।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় দায়িত্বে থাকা ভূমি কমিশনার কামরুল হাসান সোহাগ জানান, সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে কোথাও কোন অপ্রীতিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি।

ভোটকেন্দ্র পরিদর্শনে থাকা পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান জানান, ইভিএম এর মাধ্যমে ভোটগ্রহণের জন্য কিছুটা বিলম্ব হলেও এখানে শান্তিপূর্ণ ও উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। কোথাও কোন বিশৃঙ্খলা দেখা যায়নি। অত্যান্ত কঠোর নিরাপত্তার সাথে ভোট গ্রহণ করা হয়েছে।

পীরগঞ্জে আ. লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা একরামুল বেসরকারিভাবে জয়ী।

সোমবার সন্ধ্যায় পীরগঞ্জ পৌর নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার জিলহাস উদ্দিন নির্বাচনের ফলাফলের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বিদ্রোহী আওয়ামিলীগ প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা একরামুল হক ৯ হাজার ২৫৬ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম আওয়ামী লীগের প্রার্থী কাশিরুল ইসলাম ভোট পেয়েছেন ২ হাজার ৭৬১ ভোট।

এ পৌরসভায় মোট ভোটার ছিল ২১ হাজার ১৭৯জন। এর মধ্যে পুরুষ ১০ হাজার ৫শ’ ৪৭জন আর মহিলা ১০ হাজার ৬৩২জন।

নির্বাচনে মেয়র পদে ৬জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন। এর মধ্যে আওয়ামীলীগ ও বিএনপির মনোনীত প্রার্থীর বাহিরেও বিদ্রোহী স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন।

এ ছাড়া ৯টি ওয়ার্ডেও জন্য কাউন্সিলর পদে ৩২জন এবং সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর পদে ১২জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.