উত্তরের ভোরে কুয়াশাচ্ছন্ন আকাশ,দরজায় কড়া নাড়ছে শীত

৪৮

 

স্টাফ রিপোর্ট, আব্দুল ওহাব :

বিদায় নিচ্ছে আশ্বিন মাস। কার্তিকের আগমনীতে দরজায় কড়া নাড়তে শুরু করেছে শীতের আমেজ। উত্তরের জেলা হিমালয় কন্যা পঞ্চগড়ে রাত থেকে সকাল পর্যন্ত অনুভূত হতে শুরু করেছে শীতের পরশ। ঘাসের ডগায় জমছে শিশির বিন্দু। পায়ের স্পর্শে অনুভূত হচ্ছে ঠান্ডা।

ভোরে কুয়াশাচ্ছন্ন আকাশ, ঘাসের ডগায় শিশির বিন্দু এক অন্যরকম বৈচিত্রতা এনে দিয়েছে প্রকৃতিতে। যেনো নতুন ক্যানভাসে ফুটে উঠেছে প্রকৃতি। কার্তিকের এ প্রকৃতিই বলে দিচ্ছে শীত হয়তো এবার একটু আগেই চলে এসেছে।

ভোরের সূর্যোদয়ের মধ্য দিয়ে মিষ্টি রোদ আর সবুজ ঘাসের পাতার ওপর শিশির বিন্দু জানিয়ে দিচ্ছে দরজায় কড়া নাড়ছে শীত। রবিবার (১৫ অক্টোবর) ভোরে বিভিন্ন জায়গায় দেখা মিলছে কুয়াশা। ফসলের মাঠে উঁকি দিচ্ছে নতুন বীজের প্রস্ফুটিত চারা। তাতে শিশির বিন্দু ছড়িয়ে দিচ্ছে মৃদু শীতলতা।

স্থানীয়রা জানান, ভোরে বেশ কুয়াশা পড়ছে। এখন আর রাতে ফুল স্পিডে ফ্যান চালানো যাচ্ছে না। রাতে কাথা/পাতলা কম্বল জড়াতে হচ্ছে শরীরে। ভোর পর্যন্ত শীতের পরশ অনুভব হচ্ছে। তবে ঘন কুয়াশা এবং তীব্র শীত আসতে দেরি আছে।

এদিকে শীতের আগাম সবজি চাষে ব্যস্ত সময় পার করছে কৃষকরা। মুলা, ফুলকপি, বাঁধাকপি, শিম, লাউ, টমেটো, লাল শাকসহ বিভিন্ন ধরনের আগাম শীতকালীন সবজি চাষ হয়েছে।

শনিবার রাতে সাব্বির হোসেন,চিৎতময় রায়, নাঈম , হাবিব বাদলসহ কয়েকজন পর্যটক বলেন, আমরা কাঞ্চনজঙ্ঘা দেখতে এসেছিলাম। এখানে এখনই শীতের পরশ পাচ্ছি। অথচ ঢাকা ও দক্ষিণাঞ্চলে এখনো গরম। এ অঞ্চলে শীত আগে আসে তা মনে হচ্ছে।

জেলার প্রথম শ্রেণির তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের পর্যবেক্ষক সামি উজ জামান বলেন, তাপমাত্রা কমতে শুরু করেছে। শীতের আগমন ঘটছে। শনিবার সকাল ৯টায় তাপমাত্রা ২২ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড হয়েছে।

100% LikesVS
0% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.