আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস আজ

১৯

স্টাফ রিপোর্টার,মোঃ নুরনবী ইসলামঃ দেশে কোনো পণ্য প্রবেশে শুল্ক অপরিহার্য্য। কাস্টমস বা শুল্ক প্রথা আছে বলেই পণ্যের শৃঙ্খলা আছে। আর অর্থনৈতিক উন্নয়ন ত্বরান্বিত করতে দেশে নিরাপদ বাণিজ্য পরিবেশ নিশ্চিত করা খুবই জরুরি। আজ আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস।

১৯৫২ সালের ২৬ জানুয়ারি বিশ্ব কাস্টমস সংস্থা (ডব্লিউসিও) আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে। প্রতিষ্ঠাকাল থেকেই সংস্থাটি আধুনিক ও সহজতর উপায়ে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যে এর সদস্যভুক্ত দেশেগুলোকে নেতৃত্ব, পরামর্শ ও সহযোগিতা প্রদানের পাশাপাশি বর্তমান ও ভবিষ্যতের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় অত্যন্ত সক্রিয় ভূমিকা পালন করে আসছে।

এ বছর দিবসটির প্রতিপাদ্য ‘কাস্টমস বোলসটেরিং রিকোভারি, রিনোয়াল এন্ড রিসাইলেন্স ফর এ সাসটেইনেবল সাপ্লাই চেইন’।

বাংলাদেশসহ ওয়ার্ল্ড কাস্টমস অর্গানাইজেশনের (ডব্লিউসিও) সদস্যভুক্ত দেশগুলো নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে দিবসটি পালিত হচ্ছে। করোনার কারণে সীমিত আকারে দিবসটি পালন করছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)।

আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাণী দিয়েছেন।
বাণীতে রাষ্ট্রপতি বলেন, আন্তর্জাতিক বাণিজ্য তথা আমদানি-রপ্তানির ক্ষেত্রে কাস্টমস অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। রাজস্ব আহরণের পাশাপাশি বৈদেশিক বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রাসারণ, দেশীয় শিল্প সুরক্ষা, পরিবেশ ও জনস্বাস্থ্য সংরক্ষণের মাধ্যমে জনগণের জীবনমান উন্নয়নে বাংলাদেশ কাস্টমসের গুরুত্ব অপরিসীম।

বাণীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাজস্ব আদায়ে বাংলাদেশ কাস্টমসের গতিশীলতা বাড়ানোর ওপর গুরুত্ব আরোপ করেছেন।

তিনি বলেন, আশা করি, চলমান এই মুজিববর্ষে বাংলাদেশ কাস্টমস তাদের পেশাগত দক্ষতা ও সংস্কার বাস্তবায়নের মাধ্যমে রাজস্ব আদায়ে গতিশীলতা বৃদ্ধি, অপবাণিজ্য রোধ, জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদে অর্থায়ন প্রতিরোধ এবং সর্বোপরি স্বচ্ছতা ও জবাবদিহীতা নিশ্চিত করতে আরো সফল হবে।

50% LikesVS
50% Dislikes
Leave A Reply

Your email address will not be published.